আজিব কারামতি…

0
ইলিয়াস মশহুদ ::

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বর্ণনা করেন, মাওলানা সাহেব (আব্দুল হামিদ খান ভাসানী), মাওলানা শামসুল হক ও আমি ময়মনসিংহ জেলার জামালপুর মহকুমায় প্রথম সভা করতে যাই।
ছাত্রনেতা হাতেম আলী প্রচুর পরিশ্রম করেছিলো এই সভা কামিয়াব করার জন্য। আমরা সভাস্থলে উপস্থিত হয়ে দেখলাম- বিশাল জনসমাগম।
সভা মাত্রই শুরু হবে, এমন সময় দেখলাম দশ-পনেরজন লোককে চিৎকার-চেঁচামেচি করছে। আমরা সেদিকে ভ্রুক্ষেপ না করেই সভা আরম্ভ করলাম। আয়োজকরা ঠিক করেছিল, শামসুল হক সাহেব সভাপতিত্ব করবেন আর মাওলানা সাহেব প্রধান বক্তার বক্তব্য রাখবেন।
এদিকে সভা আরম্ভ হওয়ার সাথে সাথে ১৪৪ ধারা জারী করা হলো। পুলিশ এসে মাওলানা সাহেবকে একটা কাগজ দিলো। আমি বললাম- ১৪৪ ধারা মানিনা। প্রয়োজনে আমিই বক্তব্য দেবো।
মাওলানা সাহেব আমার কথায় কোনো গুরুত্ব না দিয়েই মাইক হাতে নিয়ে দাঁড়িয়ে গেলেন। উপস্থিতিদের উদ্দেশ্য করে বললেন- ১৪৪ ধারা জারী করা হয়েছে। আমাদেনকে সভা করতে দেবে না। আইন ভঙ্গ করে আমিও বক্তৃতা করতে চাই না। তবে আসুন, আমরা একটি মোনাজাত করেই সভার সমাপ্তি ঘোষণা করি। আপনারা মোনাজাত করুন- আল্লাহুম্মা আমীন…।
বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বলেন, মাওলানা সাহেব মোনাজাত শুরু করলেন। সামনে মাইক্রোফোন। প্রায় আধঘণ্টার মতো। সেই মোনাজাতের এমন কিছু নেই, যা বলেননি। ভাষণের সবকিছুই বলে ফেললেন।
এদিকে মোনাজাত বলে কথা। সরকারের পুলিশ-সেপাইরাও তখন হাত তোলে দোয়া করছে। মোনাজাতে মাওলানা সাহেব যা বলেছেন, তাতে তারাও আমীন আমীন বলেছে। এই আধঘণ্টা মোনাজাতে পুরো বক্তৃতা করে মাওলানা সাহেব সভা শেষ করলেন।
পুলিশ ও মুসলিমলীগওয়ালারা তখন বেকুব হয় দাঁড়িয়ে রইল। আজিব এক কারামতি দেখালেন মাওলানা সাহেব!

: সূত্র মনে নেই। কোথায় যেনো পড়েছিলাম।

Comment

Share.

Leave A Reply