সব মসজিদে একই পদ্ধতি খতমে তারাবিহ পড়ার আহ্বান

0

পবিত্র রামাযান মাসে খতম তারাবিহ পড়ার সময় সারাদেশে সব মসজিদে একই পদ্ধতি অনুসরণ করার জন্য আহ্বান জানিয়েছে ইসলামিক ফাউন্ডেশন। ইসলামিক ফাউন্ডেশনের সহকারী পরিচালক (জনসংযোগ) মুহাম্মদ নিজামউদ্দিন স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে এ আহ্বান জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, পবিত্র রামাযান মাসে দেশের প্রায় সব মসজিদে খতম তারাবি পবিত্র কুরআনের নির্দিষ্ট পরিমাণ পারা তিলাওয়াত করার রেওয়াজ চালু আছে। তবে কোন কোন মসজিদে এর ভিন্নতা দেখা যায়। ফলে কর্ম উপলক্ষে যাতায়াতকারী মুসল্লিদের মধ্যে কুরআন খতমের ধারাবাহিকতা রক্ষা করা সম্ভব হয় না। এই অবস্থায় ধর্মপ্রাণ মুসল্লিদের মধ্যে একটি মানসিক অতৃপ্তি অনুভূত হয়। কুরআন খতমের পূর্ণ সওয়াব থেকেও তারা বঞ্চিত হন।

এ পরিস্থিতি নিরসনকল্পে রামাযানের প্রথম ৬ দিনে দেড় পারা হিসাবে ৯ পারা এবং বাকি ২১ দিনে ১ পারা হিসাবে ২১ পারা তিলাওয়াত করলে ২৭ রামাযান রাতে অর্থাৎ পবিত্র লাইলাতুল কদরে কুরআন খতম করা সম্ভবপর হবে। এর আগে বিষয়টি নিয়ে আলেম-ওলামা, পীর-মাশায়েখ ও খতিব-ইমামগদের সঙ্গে আলোচনা হলে তারাও এ পদ্ধতিতে খতম তারাবিহ পড়ার পক্ষে বিজ্ঞ অভিমত দিয়েছিলেন এবং সে মোতাবেক অধিকাংশ মসজিদে এ পদ্ধতি অনুসরণ করা হয়।

এমতাবস্থায় দেশের সব মসজিদে খতম তারাবিতে প্রথম ৬ দিনে দেড় পারা করে ও পরবর্তী ২১ দিনে এক পারা করে তিলাওয়াতের মাধ্যমে পবিত্র লাইলাতুল কদরে কুরআন খতমের জন্য ইসলামিক ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে মসজিদের খতিব-ইমাম, মসজিদ কমিটি, মুসল্লি এবং সংশ্লিষ্ট সবার নিকট অনুরোধ জানানো হচ্ছে।

Comment

Share.

Leave A Reply