স্বাগতম ১৪৪০ হিজরি

0

আজ হিজরী নববর্ষ। হিজরী বছরের প্রথম মাস মহররম মাস শুরু হলো আজ। ১৪৩৯ হিজরি সনকে বিদায় জানিয়ে শুরু হলো ১৪৪০ হিজরী বর্ষের পথচলা।

১৪৩৯ হিজরি বর্ষ আমাদের মাঝ থেকে বিদায় নিয়েছে। আজ ১৪৪০ হিজরি সন মুসলমানের জন্য আগামী দিনে মানবতার বার্তা নিয়েই পথচলা শুরু করেছে। সমগ্র মুসলিম উম্মাহকে হিজরী নববর্ষের প্রথম দিবসে ইনসাফ টোয়েন্টিফোর ডটকম পক্ষ থেকে জানাই আন্তরিক মুবারকবাদ।

বাংলা ও ইংরেজি নববর্ষে আমাদের দেশে বিভিন্ন অনুষ্ঠানের আয়োজন তথা কর্মসূচি পালিত হয়ে থাকে। আরবি নববর্ষের অনেক গুরুত্ব ও তাৎপর্য থাকা সত্ত্বেও উল্লেখ করার মতো কোনো কর্মসূচি পালন করা হয় না বললেই চলে।

হিজরী সনের সম্পর্ক চাঁদের সঙ্গে। এ জন্য এটাকে চন্দ্র বর্ষও বলা হয়। যেহেতু চাঁদ দেখার সঙ্গে হিজরী মাসের সম্পর্ক এ জন্য গুরুত্বপূর্ণ কয়েকটি ইবাদতের সময় সরকারিভাবে চাঁদ দেখার ঘোষণা দেয়া হয়।

মহানবী হজরত মুহাম্মাদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ত্যাগ ও কুরবানির ঐতিহাসিক স্মৃতি স্মারক হিজরী সন। ইসলামের প্রচার, প্রসার এবং বিজয় কেতন উড্ডীনে হিজরী সনের গুরুত্ব ও তাৎপর্য অত্যাধিক। আইয়্যামে জাহেলিয়াতের জ্ঞানপাপীরা যখন সমহানবী হজরত মুহাম্মাদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ও ইসলামকে পৃথিবী থেকে চিরতরে সরিয়ে দিতে মরিয়া হয়ে উঠেছিল। আল্লাহ তায়ালার নির্দেশে বিশ্বনবী দ্বীন প্রচারে প্রিয় মাতৃভূমি ত্যাগ করে ৬২২ খ্রিস্টাব্দের ১২ সেপ্টেম্বর আল্লাহর নির্দেশে মহানবী মদিনায় হিজরত করেন। যাকে কেন্দ্র করেই আজকের হিজরী সন। আজো মুসলিম উম্মাহর হৃদয়ে আলোকবর্তিকা হিসেবে জাগরিত হয়ে আছে।

মুসলিম জ্যোতির্বিজ্ঞানীরা ৬২২ খ্রিস্টাব্দের ১৪ বা ১৫ জুলাইয়ের সূর্যাস্তের সময়কে হিজরী সন শুরুর সময় হিসাবে নির্ধারণ করেছেন। ১৭ হিজরী থেকে তৎকালীন মুসলিম বিশ্বের খলিফা হজরত ওমর রা.-এর শাসনামলে হিজরী সন গণনা শুরু হয়।

Comment

Share.

Leave A Reply