সিলেট ২ আসনে সম্মিলিত জোটের মনোনয়ন প্রত্যাশী মুফতী লুৎফুর রহমান কাসেমী

0

মীর আহমদ : সামনে নির্বাচন। সর্বত্র বইছে নির্বাচনী হাওয়া। ভোটের লড়াইয়ে অংশ গ্রহন করতে প্রার্থীরা প্রস্তুতি নিচ্ছেন। মাঠে-ময়দানে নির্বাচনী প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন। চারদিক চেয়ে গেছে নির্বাচন পোস্টার আর ফেস্টুনে।

বিশ্বনাথ- ওসমানীনগর সিলেট ২ আসনে পোস্টার ও ফেস্টুন টানিয়ে বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস ও জাতীয় পার্টি নেতৃত্বাধীন সম্মিলিত জাতীয় জোটের মনোনয়ন প্রত্যাশা ব্যক্ত করেছেন বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস যুক্তরাষ্ট্র শাখার সভাপতি মুফতী লুৎফুর রহমান কাসেমী।

ইতোমধ্যে তিনি দলীয় মনোনয়ন পেতে দৌড়-ঝাপ শুরু করেছেন। মনোনয়নের ব্যাপারে দলীয় নীতিনির্ধারণী ফোরামের সাথে নিয়মিত যোগাযোগ রাখছেন।

এ ব্যাপারে মুফতী লুৎফুর রহমান কাসেমী জানান, দলের হাই কমান্ডের কাছ থেকে গ্রিন সিগনাল পেলে আরো ব্যাপকভাবে কাজ শুরু করবো। ইতিমধ্যে আমার নির্বাচনী কাজে ব্যাপক সাড়া পাচ্ছি।জনগণের আকর্ষণ কাড়তে সক্ষম হচ্ছি। এছাড়া দলের তৃণমূল নেতৃত্ব ও আমার নির্বাচনী এলাকার তরুণ প্রজন্ম আমার পক্ষে গণজোয়ার সৃষ্টি করতে কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন।

মুফতী লুৎফুর রহমান কাসেমী আরও বলেন, এলাকার উন্নয়ন ও জনগণের সেবা করার সুযোগ পেলে নিজেকে জনসেবায় উৎসর্গ করবো। আলেমরা সংসদ সদস্য পদে নির্বাচন করার সুযোগ পেলে ও বিজয়ী হলে দেশ- জাতি, ইসলামের পক্ষে কাজ করবেন। সন্ত্রাস ও দুর্নীতিমুক্ত দেশ গঠনে জোরদার ভূমিকা রাখবেন।

তিনি আরো বলেন,গ্যাস-বিদ্যুৎ, রাস্তা-ঘাটের উন্নয়ন,গরীব-দুঃখী ও কৃষক-শ্রমিকের সেবা করা সর্বোপরি শায়খুল হাদীস আল্লামা আজিজুল হক রহ. ও প্রিন্সিপাল আল্লামা হাবীবুর রহমান রহ. এর খেলাফত প্রতিষ্ঠার স্বপ্ন বাস্তবায়নে কাজ করতে আমি অঙ্গিকারবদ্ধ।

উল্লেখ্য সমাজসেবক, রাজনীতিবিদ ও নিউইয়র্কের কমিউনিটি নেতা মুফতী লুৎফুর রহমান কাসেমী বিশ্বনাথ উপজেলার রাজনগর গ্রামের কৃতি সন্তান। সুদূর আমেরিকায় অবস্থান করে ইসলাম, মানবতা, দেশ ও সমাজের সার্বিক উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছেন।

হাফেজ মাওলানা মুফতি লুৎফুর রহমান কাসেমী বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের যুক্তরাষ্ট্র শাখার সভাপতি। তিনি কর্মজীবনের পাশাপাশি যুক্তরাষ্ট্রে ইসলামের প্রচার ও প্রসারের কাজে নিজেকে নিয়োজিত রেখেছেন।

যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী মুফতি কাসেমী ইতোমধ্যে নিজের মেধা, যোগ্যতা, কর্মদক্ষতার গুনে পরিচিত অর্জন করেছেন বিশ্বময়। তার অবদানের বারিতে শিক্ষিত হয়েছে সূদুর আমেরিকার মুসলিম বাগিচা এবং আলোকিত হয়েছে বাঙ্গালি কমিউনিটি।

তার উদ্যোগে নিউইয়র্কে প্রতিষ্ঠা হয়েছে ইউনাইটেড উলামা কাউন্সিল অব ইউএসএ (ইনকা)।

প্রতিষ্ঠালয় থেকেই মুফতি কাসেমী সংগঠনটির প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন।

এছাড়া তাহার তত্ত্বাবধানে নিউইয়র্কের ম্যানহাটনে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে ছয় তলা বিশিষ্ট আস-সাফা ইসলামিক সেন্টার টাওয়ার। ২০০৪ সাল থেকে এ প্রতিষ্ঠানের জেনারেল সেক্রেটারী হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন তিনি।

মুফতি লুৎফুর রহমান ক্বাসেমী একজন ইমাম, খতিব, ইসলাম প্রচারক, ইন্টারফেইম স্কলার ও বিশিষ্ট মিডিয়া ব্যক্তিত্ব। একই সঙ্গে তিনি অনেক গুরু দায়িত্ব পালন করছেন।

Comment

Share.

Leave A Reply